General Knowledge Notes in BengaliHistory Notes

তুঘলক বংশের ইতিহাস : সুলতানি সাম্রাজ্য – PDF

Summary on Tughlaq Dynasty of Delhi Sultanate

তুঘলক বংশের ইতিহাস

আজকে আমরা আলোচনা করবো তুঘলক বংশের ইতিহাস নিয়ে।

এর আগে আমরা আলোচনা করেছিলাম খলজি বংশের ইতিহাস নিয়ে। দেখে নাও

সুলতানি সাম্রাজ্য : খলজি বংশের ইতিহাস – PDF

তুঘলক বংশ বংশ পরিচয়

১. গিয়াসুদ্দিন তুঘলক (১৩২০ – ১৩২৫ খ্রিস্টাব্দ )


  • গিয়াসউদ্দিন তুঘলকের আসল নাম গাজী মালিক।
  • তিনি ছিলেন একজন তুর্কি দাস।
  • ১৩২০ খ্রিস্টাব্দে খসরু শাহকে হত্যা করে দীপালপুরের শাসক গাজী মালিক ‘গিয়াসুদ্দিন তুঘলক’ উপাধি নিয়ে দিল্লির সিংহাসনে বসেন।
  •  তিনি প্রথম জলসেচ ব্যবস্থার প্রচলন করেন।
  •  তুঘলকাবাদ শহরের প্রতিষ্ঠা করেন।
  • এক দুর্ঘটনায় তাঁর মৃত্যু হলে তাঁর পুত্র জুন খাঁ সিংহাসনে বসেন মহম্মদ-বিন-তুঘলক উপাধি নিয়ে ।

২. মহম্মদ-বিন-তুঘলক (১৩২৫ – ১৩৫১ খ্রিস্টাব্দ )


  • মহম্মদ-বিন-তুঘলকের আসল নাম জুনা খাঁ। তিনি গিয়াসউদ্দিন তুঘলকের পুত্র।
  • তিনি যুক্তিবিদ্যা,দর্শন, গণিত, হস্তবিদ্যা এবং রসায়ন বিজ্ঞানের পারদর্শী ছিলেন। চিকিৎসাশাস্ত্রে জ্ঞানী ছিলেন।
  • তিনি একজন পারদর্শী হস্তশিল্পী ছিলেন। তিনি পার্সি, আরবি, তুর্কি এমনকী সংস্কৃতেও পারদর্শী ছিলেন।
  • বিখ্যাত মরক্কোর পর্যটক, ইবন বতুতা তার শাসনকালে ভারত পরিদর্শন করেন। ইবন বতুতাকে তিনি দিল্লির কাজী হিসেবে নিয়োগ করেছিলেন।
  • তিনি ছিলেন একজন “Proficient Calligrapher”
  • মহম্মদ-বিন-তুঘলকের শিক্ষাগুরু ছিলেন – কুতুল খাঁ ।

দোয়াবের রাজস্ব বৃদ্ধি

  • আর্থিক মুনাফা, সেনাবাহিনীর রসদ সরবরাহ, কৃষকদের শাস্তিদান হিসেবে দোয়াব  ( গঙ্গা-যমুনার দোয়াব অঞ্চল ) – এর রাজস্ব বৃদ্ধি করেন।

রাজধানী স্থানান্তর

  • মঙ্গোল আক্রমণ থেকে বাঁচার জন্য দিল্লি থেকে  দেবগিরিতে রাজধানী স্থানান্তর করেন (১৩২৬-২৭ খ্রিস্টাব্দে ) এবং তার নাম রাখেন দৌলতাবাদ।
  • কিছুদিন পরে তিনি আবার দেবগিরি থেকে দিল্লিতে রাজধানী স্থানান্তর করেন।

প্রতীকী মুদ্রা ( Token Currency ) প্রবর্তন

  • রাজকোষের অর্থাভাব মেটাবার উদ্দেশ্যে রৌপ্যমুদ্রার পরিবর্তে চীন ও পারস্যের অনুকরণে একধরণের ‘প্রতীকী মুদ্রা’ প্রবর্তন করেন।
  • বরণীর মতে প্রতীকী মুদ্রাগুলিতে তামা ব্যবহৃত হয়েছিল। কিন্তু আধুনিক পন্ডিতদের মতে এগুলি ব্রোঞ্জের তৈরী ছিল।
  • এই নতুন মুদ্রা বিপুল পরিমানে নকল হতে শুরু করলে বিদেশী বণিকরা নিতে অস্বীকার করে এবং শেষ পর্যন্ত সুলতান বাধ্য হন এই প্রতীকী মুদ্রা প্রত্যাহার করতে। এর পর তিনি আবার রৌপ্য মুদ্রা চালু করেন।

রাজ্যজয়

  • নগরকোট (১৩৩৭ খ্রিস্টাব্দ ), কুর্মাচল ও কারাজল (১৩৩৭ -৩৮ খ্রিস্টাব্দ ) জয় করেন।
  • খোরাসান ও ইরাক জয়ের উদ্দেশ্যে ৩ লক্ষ ৭০ হাজার সৈন্যের এক বাহিনী এক বছর ধরে পোষণ করেন ।

প্রশাসনিক সংস্কার

  • তিনি ‘দেওয়ানি শিয়াশত’ নামে এক প্রকার পদ সৃষ্টি করেন, যাদের কাজ ছিল দুর্নীতিগ্রস্ত অফিসারদের
    শাস্তি দেওয়া।
  • কৃষি উন্নতি ও পতিত জমি উদ্ধার করার জন্য আমির-ই-কোহি নামে একটি কৃষি বিভাগ তৈরি করেন।
  • তিনি কৃষকদের সােন্ধার তাকাভির ঋণ দেন।
  • কৃষি উন্নতি ও পতিত জমি উদ্ধার করার জন্য আমির-ই-কোহি নামে একটি কৃষি বিভাগ তৈরি করেন।

মহম্মদ-বিন-তুঘলকের সমালোচনা

  • বদায়ুনী মহম্মদ-বিন-তুঘলক সম্পর্কে বলেছিলেন – “তাঁর মৃত্যুতে তিনি প্রজাবর্গের হাত থেকে মুক্তি পান এবং প্রজাবর্গও তাঁর হাতে মুক্তি পায়”
  • Lane Poole তাঁর সম্পর্কে বলেছিলেন
      • “He was a man with ideas for beyond his age”.
      • “Daulatabad remained a monument of misdirected energy”.
      • “With best intentions, excellent ideas, but no balance or patience, no sense of proportion, Md. Bin Tughlaq was a transcendent failure”.
  • রমেশ চন্দ্র মজুমদার তাঁর সম্পর্কে বলেছিলেন – “It is difficult to avoid the conclusion that his character and policy largely contributed to the decline of the Delhi Sultanate”.
  • ঈশ্বরী প্রসাদ তাঁকে বলেছেন – “উন্মাদ” , “অব্যবসৃচিত্ত “

আমার রাজ্য রোগগ্রস্থ, কোনো চিকিৎসকই তাকে সুস্থ করতে পারবে না। মহম্মদ-বিন-তুঘলক

 

৩. ফিরােজ-শাহ-তুঘলক ( ১৩৫১ – ১৩৮৮ খ্রিস্টাব্দ )


  • মহম্মদ-বিন-তুঘলকের মৃত্যুর পর ৪৬ বছর বয়সে তাঁর কাকার ছেলে ফিরােজ শাহ তুঘলক সিংহাসনে বসেন।
  • তিনি দিপালপুরের হিন্দু জাঠ রানির পুত্র। তার পিতার নাম ছিল রজ্জব।
  • গিয়াসউদ্দিন তুঘলক তাকে ‘নায়েবি আমির হাজিব’ এবং ‘নায়েব বরবক’ উপাধি দেন।
  • তিনি ২৪ প্রকার কর বাতিল করে কোরানে উল্লিখিত চারটি কর চালু রাখেন। এই করগুলি হলো
      • খারাজ বা ভূমি কর
      • খামস বা লুন্ঠিত দ্রব্যের এক পঞ্চমাংশ
      • জিজিয়া বা অমুসলমানদের কাছ থেকে কর
      • জাকাত বা মুসলমানদের ধর্ম কর ।
  •  তিনি জল কর, হাক-ই-সার্ব চালু করেন।
  • কৃষি ঋণ তুলে দেন।
  • তিনি সেনাবাহিনী থেকে দাগ ও হুলিয়া প্রথা তুলে দেন।
  • দাস কেনাবেচা প্রথা নিষিদ্ধ করে দেন। ক্রীতদাসদের দেখাশােনার জন্য ‘দেওয়ানি বন্দেগান’ নামে
    একটি দপ্তর গঠন করেন।
  • বিনামূল্যে চিকিৎসার জন্য ‘দার-উল-সিফা’  নামে দাতব্য বিভাগ প্রতিষ্ঠা করেন।
  • দরিদ্র মুসলিম কন্যাদের বিবাহ এবং  অনাথ ও বিধবাদের ভরণ পোষণের জন্য ‘দেওয়ানি খয়রত’ বিভাগ চালু করেন।
  • তিনি বেকারদের চাকরির জন্য কর্মবিনিয়ােগ কেন্দ্র এমপ্লয়মেন্ট এক্সচেঞ্জ স্থাপন করেন।
  • খাল খননের জন্য তিনি বিখ্যাত। তিনি আলাউদ্দিন খলজির ‘হাউস-ই-ইনাহি ও ইলতুৎমিসের
    ‘হাউস-ই-সামসি’ খাল দুটি সংস্কার করেন।
  • তিনি জানপুর, ফিরােজপুর, ফিরােজ শাহ কোটলা এবং হিসার-ফিরােজা সহ বিভিন্ন শহরের প্রতিষ্ঠাতা।
  • ১৩৬৮ সালে বাজদ্বারা ক্ষতিগ্রস্থ হওয়া কুতুব মিনারের উপরের দু’টি তলা তিনি পুনর্নির্মাণ করেন।
  • দিল্লিতে ত্রিমূর্তি ভবন কমপ্লেক্স অবস্থিত তার শিকারি ঘর শিকার্ঘ ‘কুশাক মহল’ নামে পরিচিত।
  • দিল্লিতে তুঘলক রােড তার নাম অনুসারে নির্মিত হয়।
  • হেনরি ইলিয়ট ও এলফিনস্টোন তাঁকে “সুলতানি যুগের আকবর” বলে অভিহিত করেন।
  • সম্রাট অশোকের দুটি স্তম্ভ হরিয়ানার তোপরা এবং উত্তরপ্রদেশের মেরুট থেকে দিল্লিতে আনেন।
  • তাঁর মন্ত্রির নাম ছিল – ‘খান-ই-জাহান-মকবুল’।
  • ফিরােজ শাহ তুঘলক নিজের স্মৃতি কথা নিজেই লিখেছিলেন।
  • “রাগ দর্পনের” ফার্সি অনুবাদ করেন তিনি।

তুঘলক বংশের শেষ সুলতান ছিলেন নাসিরুদ্দিন মামুদ শাহ (১৩৯৪ – ১৪২২ খ্রিস্টাব্দ ) । নাসিরুদ্দিন মামুদ শাহের আমলে সমরখন্দের অধিপতি তৈমুর লঙ ভারত আক্রমণ করেন ( ১৩৯৮ খ্রিস্টাব্দে )। ১৩৯৯ খ্রিস্টাব্দে তৈমুর ভারত ত্যাগ করেন।

তুঘলক বংশের ইতিহাস –  প্রশ্ন ও উত্তর :

১. “তুঘলক-নামা” গ্রন্থটি রচনা করেন – আমির খসরু
২. কোন গ্রন্থে গিয়াসুদ্দিন-তুঘলকের সিংহাসন লাভের বর্ণনা আছে ? তুঘলক-নামা
৩. কোন সুলতানকে “সুলতানি যুগের আকবর” বলা হয় ? ফিরোজ শাহ তুঘলক
৪. কোন শাসকের আমলে ইবন বতুতা ভারতে এসেছিলেন ? মহম্মদ বিন তুঘলক
৫. কোন তুঘলক সুলতান তার রাজধানী দিল্লি থেকে দেবগিরিতে নিয়ে যান ? মহম্মদ বিন তুঘলক
৬. দিল্লির কোন সুলতান তার প্রজাদের ২৪ রকমের করের হাত থেকে মুক্তি দিয়েছিলেন ? ফিরোজ শাহ তুঘলক
৭. তুঘলক বংশের প্রতিষ্ঠাতা কে ? গিয়াসুদ্দিন তুঘলক
৮. গিয়াসুদ্দিন তুঘলকের প্রকৃত নাম হলো গাজী মালিক
৯. জুনা খাঁ বা জোন খাঁ কার প্রকৃত নাম ? মহম্মদ বিন তুঘলক
১০. দেবগিরির নাম পরিবর্তন করে দৌলতাবাদ রাখেন মহম্মদ বিন তুঘলক
১১. কারাজল অভিযানে বিন তুঘলকের বাহিনীর সেনাপতি কে ছিলেন ? খসরু মালিক
১২. কোন সুলতানের শেষ সামরিক অভিযান ছিল গুজরাটে বিদ্রোহী নেতা তঘির বিরুদ্ধে ? মহম্মদ বিন তুঘলক
১৩. মহম্মদ বিন তুঘলক মারা যান ১৩৫১ খ্রিস্টাব্দে
১৪. সুলতান ফিরোজ শাহ তুঘলকের পিতা ছিলেন রজ্জব
১৫. কোন সুলতানের মৃত্যুর পর দিল্লির মসনদ ২ দিনের জন্য সুলতানহীন ছিল ? মহম্মদ বিন তুঘলক
১৬. সুলতানি যুগের আকবর কোন সুলতানকে বলা হয় ? ফিরোজ শাহ তুঘলক
১৭. কোন ঐতিহাসিক ফিরোজ শাহ তুঘলককে সুলতানি যুগের আকবর বলেছেন ? এলফিনস্টোন
১৮. কোন করটি মহম্মদ বিন তুঘলক অনুমোদিত চারপ্রকার করের অন্তর্ভুক্ত ছিল না ? চুঙ্গি কর
১৯. কাকে “সেচ পরিকল্পনার জনক” বলা হয় ? ফিরোজ শাহ তুঘলক
২০. কোন সুলতান মৃত্যুদণ্ড বা সিয়াসত প্রথা তুলে দেন ? ফিরোজ শাহ তুঘলক
২১. তুঘলক বংশের শেষ সুলতান ছিলেন নাসিরুদ্দিন মাহমুদ
২২. গিয়াসুদ্দিন তুঘলকের পুত্র মহম্মদ-বিন-তুঘলকের আসল নাম কি ? জুনা খাঁ
২৩. কাকে পাগলা রাজা বলা হয় ? মহম্মদ বিন তুঘলক -কে
২৪. পতিত জমিকে আবাদি জমিতে রূপান্তরিত করার জন্য মহম্মদ-বিন-তুঘলক চালু করেন আমীর-ই-কোহি
২৫. কার অনুকরণে মহম্মদ-বিন-তুঘলক টোকেন মুদ্রা চালু করেন ? চীনের কুবলাই খাঁ ও পারস্যের গাইখাতু
২৬. মহম্মদ-বিন-তুঘলকের পরে কে দিল্লির সিংহাসনে বসেন ? ফিরোজ-শাহ-তুঘলক
২৭. “কিতাব উল রহেলা” – গ্রন্থটি কার লেখা ? ইবন বতুতা
২৮. খামোস কোন ধরণের কর ? লুন্ঠিত দ্রব্যের ওপরে কর
২৯. তক্কাভি কি ? সুলতানি যুগের এক প্রকার খাজনা
৩০. কোন সুলতান “কর্ম বিনিয়োগ কেন্দ্র” ( Employment Exchange ) স্থাপন করেন ? ফিরোজ-শাহ-তুঘলক
৩১. ফিরোজাবাদ, ফতেহাবাদ শহরগুলি কে পত্তন করেন ? ফিরোজ-শাহ-তুঘলক
৩২. “তারিখ-ই-ফিরোজ শাহী” গ্রন্থটি কার লেখা ? জিয়াউদ্দিন বরণী
৩৩. ১৩৯৮ সালে তৈমুর লং কার আমলে ভারত আক্রমণ করেন ? নাসিরুদ্দিন মাহমুদ

আরো দেখে নাও :

সুলতানি সাম্রাজ্য : খলজি বংশের ইতিহাস –  PDF

সুলতানি সাম্রাজ্য : দাস বংশের ইতিহাস

দিল্লির সুলতানি সাম্রাজ্য প্রশ্ন ও উত্তর । সুলতানি আমল

লোদী বংশের ইতিহাস – প্রশ্ন ও উত্তর | লোদী সাম্রাজ্য

ভারতের ইতিহাস –  ৩০০টি MCQ ( PDF )

ভারতের ইতিহাস বই ( PDF )

Download File in PDF format 

File Name : তুঘলক বংশের ইতিহাস _ সুলতানি সাম্রাজ্য – PDF – বাংলা কুইজ

Size : 4.56 MB

No. of Pages : 07

Download Link : Click Here 

Covered Topic :

তুঘলক বংশের ইতিহাস PDF, তুঘলক বংশ PDF, ভারতের ইতিহাস PDF, মধ্যযুগের ভারতের ইতিহাস PDF , তুগলক রাজবংশ,

To check our latest Posts - Click Here

Telegram

Related Articles

Back to top button
error: Alert: Content is protected !!